নারীরা সাবধানঃ রাজধানীতে ছিনতাইকারীর হ্যাচকা টানে রিকশা হতে পড়ে নারীর মৃত্যু

Total Views : 65
Zoom In Zoom Out Read Later Print

নারীরা সাবধানঃ রাজধানীতে ছিনতাইকারীর হ্যাচকা টানে রিকশা হতে পড়ে নারীর মৃত্যু

মোঃ আলাউদ্দিন সোহেল,মহানগর দক্ষিণ সংবাদদাতাঃ

রাজধানীতে রিক্সা যাত্রীর ব্যাগ হ্যাচকা টান দিয়ে ছিনতাই নতুন কিছু নয়। এ ধরনের ঘটনা প্রায়শঃই চোখে পড়ে রাজধানী খামারবাড়ি মোড়, কাওরান বাজার হতে বাংলামোটরের মাঝে , পুরানা পল্টন মোড়ে কিংবা মতিঝিল এলাকায়।  পুলিশের প্রচন্ড দাবড়ানিতে এদের অপরাধ প্রবণতা কমেই গিয়েছিল। কিন্তু ইদানিংকালে ঈদকে সামনে রেখে সক্রিয় হয়ে উঠেছে  এই চক্রটি। সম্প্রতি, রাজধানীর মতিঝিল থানার কমলাপুর  এলাকায়
 ছিনতাইকারীর হ্যাঁচকা টানে রিকশা থেকে পড়ে এক নারীর মৃত্যু হয়েছে।  নিহত সুনিতা রানী দাস (৫০) পরিচ্ছন্নতাকর্মী ছিলেন। মতিঝিল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইয়াসির আরাফাত ক্রাইম ডায়রিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

নিহতের  ছেলে রাজু দাস ক্রাইম ডায়রির এ সংবাদদাতাকে বলেন, তার মা বৌদ্ধমন্দিরে দুই বছর ধরে পরিচ্ছন্নতার কাজ করতেন। গোপীবাগ ঋষিপাড়ার বাসা থেকে বুধবার ভোরে আমার খালাতো ভাই সুজিতকে নিয়ে ভোর ৬টার দিকে রিকশা করে বৌদ্ধমন্দিরের দিকে যাচ্ছিলেন।  কমলাপুর বিআরটিসি বাস ডিপো এলাকায় পৌঁছলে একটি প্রাইভেট কার থেকে এক ছিনতাইকারী ভ্যানিটি ব্যাগ ধরে টান দিলে নিহত সুনিতা রানী সাথে সাথে রিকশা থেকে ছিটকে পড়ে মাথা ও শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাত পান । আহত অবস্থায় তাকে প্রথমে মুগদা হাসপাতালে নেওয়া হয়। এরপরে অজ্ঞান অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেলে নেয়া হয়। সেকানে ২০৪ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুপুর ১২টায় তিনি মারা যান।

সুনিতা গোপীবাগ ঋষিপাড়ায় স্বামী ও তিন সন্তান নিয়ে ভাড়া থাকতেন। তিনি গেণ্ডারিয়া থানার নারিন্দা মনির হোসেন লেনের ঋষিপাড়ার জ্ঞানিন্দ্র দাসের মেয়ে। তার স্বামী সুজন চন্দ্র দাসের বাড়ি টাঙ্গাইল জেলার গোপালপুর উপজেলার ললিন বাজার গ্রামে। মতিঝিল থানার ওসি সাংবাদিকদের জানান,  ছিনতাইকারীদের চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। শীঘ্রেই তাদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে।

ক্রাইম ডায়রি// রাজধানী

See More

Latest Photos