• শুক্রবার ( সকাল ৮:০৪ )
    • ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং

মশার নতুন ঔষধে মরছে মশাঃ রাজধানীর দুই সিটিতে চিরুনি অভিযান

শাহাদাত হোসেন রিটনঃ

মশক নিধনের জন্য  আমদানীকৃত নতুন  ঔষধে মশা মরছে  বলে দাবি করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন। মঙ্গলবার ঢাকা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে এক পরিছন্ন কর্মসূচিতে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ দাবি করে বলেন, এ ঔষধে ভাল ফল দিচ্ছে।

নগর উন্নয়ন সাংবাদিক ফোরাম বাংলাদেশ ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন যৌথভাবে এ পরিছন্নতা কর্মসূচির আয়োজন করেছে।

এদিকে মশা নির্মূলে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনও (ডিএনসিসি) চিরুনি অভিযান শুরু হয়েছে। ওয়ার্ডভিত্তিক এডিস মশার প্রজননস্থল ধ্বংসকরণ ও বিশেষ পরিচ্ছন্নতার এ কার্যক্রম চলবে বর্ষা মৌসুম পর্যন্ত।

মঙ্গলবার ডিএনসিসির ১৯ নম্বর ওয়ার্ড (গুলশান ও বনানী এলাকা) থেকে এ অভিযান শুরু হয়। গুলশানের ডা. ফজলে রাব্বী পার্কে অভিযানের উদ্বোধন করেন ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. একেএম নাসির উদ্দিন বলেন, ঢাকা মেডিকেল কলেজে প্রতিদিন সাড়ে ৪ হাজার রোগী ভর্তি থাকে। এ অবস্থায় এখানে নানান ধরনের আবর্জনার সৃষ্টি হয়। আমরা সবাই মিলে কাজ করলে নিজ নিজ প্রাঙ্গণ পরিচ্ছন্ন রাখা সম্ভব হবে।

ঢাকা উত্তরের মেয়র  আতিকুল ইসলাম বলেন, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের প্রতিটি বাড়িতে কাল চিরুনি অভিযান শুরু হবে। কোনো বাড়িতে লার্ভা পাওয়া গেলে স্টিকার লাগিয়ে দেয়া হবে। ১০-১৫ দিন পর আবার গিয়ে পরীক্ষা করা হবে। মশা থাকলে জরিমানা করা হবে।

মশা নিয়ন্ত্রণে সবাইকে নিয়ে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে মেয়র বলেন, এ জন্য সবাইকে সচেতন হতে হবে। জমা পানি ফেলে দিতে হবে।

মশক নিধন কার্যক্রম সম্পর্কে আতিকুল ইসলাম বলেন, নতুন করে আরও ২০০ ফগার মেশিন ও ১৫০ স্প্রে মেশিন বিদেশ থেকে আনা হয়েছে। মশা মারার কার্যক্রম তদারকি ও ফল গণমাধ্যমের কাছে জানানো হবে বলেও জানান তিনি।

ডিএনসিসির প্রতিটি ওয়ার্ড ১০টি ব্লকে ভাগ করে প্রতিটি ব্লককে ১০টি সাব-ব্লকে ভাগ করা হয়েছে। রোজ একটি ব্লকের ১০টি সাব-ব্লকের প্রতিটি বাসাবাড়ি, প্রতিষ্ঠান, খোলা জায়গা ইত্যাদি সম্পূর্ণরূপে পরিষ্কার ও এডিস মশার লার্ভা ধ্বংস করা হবে। এভাবে ১০ দিনে একটি ওয়ার্ডটি সম্পূর্ণরূপে পরিষ্কার এবং এডিস মশার লার্ভা নির্মূল করা হবে।  পর্যায়ক্রমে এ অভিযান পুরো ডিএনসিসিতে পরিচালনা করা হবে। এভাবে সারাদেশেই অভিযান পরিচালনা করলে একসপ্তাহেে পুরো দেশ ডেঙ্গুমুক্ত হবে বলে অভিজ্ঞমহলের ধারণা।

ক্রাইম ডায়রি//জাতীয়

90total visits,2visits today

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *